আপনার সন্তান লম্বা হচ্ছে না কেন? জেনে নিন!

আপনার শিশুটি ডিম বা মাছ খেতে চায় না। ক্লাসের বাকি সবাই যেখানে তরতর করে বেড়ে উঠছে, তখন আপনার শিশুটির উচ্চতা তুলনামূলক কম। এর কারণ হল প্রোটিনের অভাব।
প্রয়োজনের তুলনায় কম প্রোটিন জাতীয় খাবার খেলে তা শিশুর স্বাভাবিক বিকাশের পথে বাধা হয়ে দাঁড়ায়। এই একই কারণে স্বাভাবিক উচ্চতাও লাভ করে না শিশুরা।

উন্নয়নশীল দেশগুলিতে প্রোটিনের অভাবে শিশুদের উচ্চতা কমে যাচ্ছে। নতুন এক সমীক্ষায় জানা গিয়েছে এশিয়া, আফ্রিকা এবং লাতিন আমেরিকার দেশগুলিতে পর্যাপ্ত খাবার ও প্রোটিনের অভাবে শিশুদের দেহের গঠন জন্ম থেকেই ভঙ্গুর প্রকৃতির হয়৷ শুধু তাই নয় স্বাভাবিক উচ্চতাও তারা লাভ করে না।

৩০০ জন আফ্রিকান শিশুর ওপর একটি সমীক্ষা চালানো হয়েছে। তাদের রক্ত পরীক্ষা করে গবেষকরা জানতে পেরেছেন প্রায় সব শিশুর দেহেই প্রয়োজনীয় অ্যামাইনো অ্যাসিড প্রয়োজনের চেয়ে ২০ শতাংশ কম। আর এই কারণেই তাদের দেহের সঠিক বৃদ্ধি ব্যাহত হয়৷ তাদের উচ্চতাও বৃদ্ধি পায় না। ই-বায়ো-মেডিসিন নামক একটি জার্নালে সম্প্রতি এই সমীক্ষার কথা প্রকাশিত হয়েছে। দুধ, ডিম, ডাল, মাছ, সোয়াবিন জাতীয় খাবারে বেশি পরিমাণে প্রোটিন থাকে যা শিশুকে তাড়াতাড়ি বাড়তে সাহায্য করে। পিছিয়ে পড়া দেশগুলিতে দারিদ্রের পরিমাণ বেশি বলে অপুষ্টিতে ভোগে বাচ্চারা৷ তাই অন্যান্য খাবারে খরচ না করে এই ধরনের খাবার জোগাড় করতে পারলে উচ্চতায় দ্রুত বেড়ে উঠবে শিশুরা।

⇒ ভালো লাগলে প্লিজ বন্ধুদের সাথে শেয়ার করবেন শেয়ার করতে √ এখানে ক্লিক করুন

তথ্যসূত্র: কালের কন্ঠ