উজ্জ্বল মসৃণ ত্বকের জন্য ঘরেই তৈরি করে নিন ফেস স্ক্রাব

ত্বক সমস্যার প্রধান কারণ হচ্ছে ত্বকের উপরের ময়লা ও মরা কোষ সঠিকভাবে পরিষ্কার না হওয়া। যার কারণে ত্বক কালচে দেখায়, ব্রণের সমস্যা শুরু হয় ও ত্বক সংক্রান্ত আরও নানান সমস্যা দেখা দেয়। এই সকল সমস্যা সমাধানের অন্যতম উপায় হচ্ছে ত্বকের জন্য সঠিক স্ক্রাবের ব্যবহার। ত্বক স্ক্রাব করে ত্বকের উপরের অংশের ময়লা এবং মরা কোষ দুটোই দূর করা সম্ভব। কিন্তু বাজারের কেমিক্যাল যুক্ত ফেসিয়াল স্ক্রাব ব্যবহার না করে প্রাকৃতিক স্ক্রাব ব্যবহার করলে ভালো ফলাফল পাওয়া সম্ভব। তাই আজকে শিখে নিন সম্পূর্ণ পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া বিহীন দারুণ ২ টি প্রাকৃতিক ফেস স্ক্রাব তৈরির পদ্ধতি।১/ বেকিং সোডার স্ক্রাব –

খুব অবাক শোনালেও বেকিং সোডার ব্যতিক্রমী ব্যবহারগুলোর মধ্যে অন্যতম হচ্ছে প্রাকৃতিক স্ক্রাব তৈরি। চলুন জেনে নেয়া যাক পদ্ধতিটি।

– ২ টেবিল চামচ বেকিং সোডা, ১ চা চামচ দারুচিনি গুঁড়ো, অর্ধেকটা লেবুর রস এবং ৫ টেবিল চামচ মধু একসাথে ভালো করে মিশিয়ে ঘন পেস্টের মতো তৈরি করে নিন।

– এই পেস্টটি পুরো ত্বকে ভালো করে লাগিয়ে খুবই হালকা করে ম্যাসেজ করে নিন ১-২ মিনিট। এরপর ৫ মিনিট ত্বকে রেখে নিন।

– ৫ মিনিট পর ভালো করে ধুয়ে মুছে ফেলুন। মধু প্রাকৃতিক ময়সচারাইজার, সুতরাং এরপর কোনো ক্রিম ব্যবহার না করলেও চলবে।

– সপ্তাহে দু-বারের বেশি এই স্ক্রাবটি scrub ব্যবহার করবেন না।

২/ চন্দনের গুঁড়োর স্ক্রাব –

প্রাচীন কাল থেকেই চন্দনের গুঁড়ো রুপচর্চায় ব্যবহৃত হয়ে আসছে। এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ত্বকের জন্য খুবই স্বাস্থ্যকর।

– ২ টেবিল চামচ চন্দনের গুঁড়ো, ১ টেবিল চামচ শুকনো কমলা লেবুর খোসা গুঁড়ো ও ২ টেবিল চামচ মুলতানি মাটি একসাথে ভালো করে মিশিয়ে নিন।

– পরিমান মতো পানি দিয়ে ঘন পেস্টের মতো তৈরি করে ফেলুন। এরপর এই পেস্টটি পুরো ত্বকে ভালো করে লাগান এবং ম্যাসেজ করুন।

– ৩-৪ মিনিট ম্যাসেজ করে নিয়ে স্ক্রাবটি ত্বকে রেখে দিন ৫ মিনিট। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে আলতো ঘষে তুলে নিন।

– ত্বক ভালো করে ধুয়ে পরিষ্কার করে মুছে নিন ভালো কোনো ময়েসচারাইজার ব্যবহার করুন।

– সপ্তাহে ২ বার এই স্ক্রাবটি ব্যবহার করলে ত্বকের উজ্জ্বলতা ও মসৃণতা আপনি নিজেই টের পাবেন।

* অনেকের ত্বক লেবু ও কমলালেবুর জন্য অ্যালার্জির কারণ হতে পারে, তারা এই স্ক্রাব scrub ব্যবহার থেকে বিরত থাকুন।

তথ্যসূত্রঃ দ্য টাইমস অফ ইন্ডিয়া

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *