চুল পড়ার আসল কারণগুলো আগে জানুন

আমাদের প্রতিটা অঙ্গপ্রত্যঙ্গের মধ্যে চুল hair খুবই প্রিয়। যাকে সুস্থ রাখার জন্য যথেষ্ট যত্ন নেওয়া প্রয়োজন। কিন্তু চুলের সমস্যা hair problem প্রায়ই আমাদের প্রত্যেকের থাকে।
shajghor_because-hair-fallচুল পড়া, Hair Fall টাক পড়ে যাওয়া, চুল অকালে পেকে যাওয়া প্রভৃতি বিভিন্ন সমস্যায় আমাদের পড়তে হয়। প্রত্যেকদিন যদি ১০০টি করে চুল পড়ে, Hair Fall তাহলে তা স্বাভাবিক। কিন্তু কখনও যদি এমনটা মনে হয় যে, স্বাভাবিকের তুলনায় আপনার বেশি চুল পড়ছে, তাহলে তার জন্য অবশ্যই চিকিৎসা করান।

চুল পড়ার Hair Fall বিভিন্ন কারণ হতে পারে। চিকিৎসা শুরু করার আগে জেনে নিন কোন কোন কারণে চুলের সমস্যা হয় –

১) সঠিকভাবে চুল আঁচড়ানোটা খুবই জরুরি। চুল পড়ে যাওয়ায় অধিকাংশ ক্ষেত্রে দায়ী থাকে সঠিকভাবে চুল না আঁচড়ানো। যেমন, ভেজা চুল কখনওই আঁচড়ানো উচিৎ নয়। ভেজা অবস্থায় চুলের গোড়া নরম থাকে। সেই সময় চুল আঁচড়ালে চুল ছিঁড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।

২) গরম জল চুলের পক্ষে খুবই অপকারী। কখনওই চুল গরম জল দিয়ে ধোবেন না। চেষ্টা করবেন ঠান্ডা জলে চুল ধুতে।

৩) জিনগত দিক থেকেও চুলের বিভিন্ন সমস্যা হতে পারে। শুধু চুল নয়, আমাদের শরীরের বিভিন্ন দিকে প্রভাব ফেলে আমাদের জিন। তাই আপনার পরিবারের কোনও সদস্যের যদি চুলের কোনও সমস্যা থেকে থাকে, তাহলে আপনারও হতে পারে।

৪) চুলে অত্যধিক পরিমাণে কেমিক্যাল জাতীয় প্রোডাক্ট ব্যবহার কিংবা সারাক্ষণ স্টাইলিং কিট ব্যবহারও চুলের সমস্যার অন্যতম কারণ হতে পারে।

৫) আমাদের খাবারের ধরনও আমাদের চুলের সমস্যার Hair Problem কারণ হতে পারে। চুলের সমস্যাকে রোধ করতে আমাদের ডায়েটের দিকেও নজর দেওয়া দরকার।

৬) ৫০ কিংবা ৬০ বছরের উর্ধ্বের ব্যক্তিদের চুল পড়ার সমস্যা খুবই সাধারণ। বয়সজনিত কারণে চুল, ত্বক, নখের বৃদ্ধি হ্রাস হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *