পায়ে পানি আসা সমস্যার ঘরোয়া সমাধান

বিশেষ করে যারা একটু ভারী স্বাস্থ্যের অধিকারী তারা অনেকেই পায়ে পানি আসা বা পা ফুলে যাওয়ার সমস্যায় ভুগে থাকেন। হাঁটা চলা বা বসার ক্ষেত্রে একটু নড়চড় হলেই পায়ে পানি এসে পা ফুলে যায়। তবে এই একটু সচেতন হলেই এই বিরক্তিকর সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন খুব সহজেই।সোডিয়ামমুক্ত খাবার খাওয়ার চেষ্টা করুন :
সকল ধরণের সোডিয়ামযুক্ত খাবার অর্থাৎ অতিরিক্ত লবণ যুক্ত খাবার এড়িয়ে চলার চেষ্টা করুন। সোডিয়াম দেহে পানির পরিমাণ বাড়িয়ে তোলে। অতিরিক্ত লবণ ও লবণযুক্ত খাবার একেবারেই খাবেন না।

পটাশিয়াম যুক্ত খাবার রাখুন খাদ্য তালিকায় :
পটাশিয়াম যুক্ত খাবার দেহের ইলেক্টোলাইটের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতে সহায়তা করে, যার ফলে পায়ে পানি আসার সমস্যা থেকে মুক্ত থাকা সম্ভব হয়। তাই কলা, বাঙ্গি, কিশমিশ জাতীয় পটাশিয়াম যুক্ত খাবার রাখুন প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায়।

একটানা দাড়িয়ে বা পা ঝুলিয়ে রাখবেন না :
একটানা দাড়িয়ে থাকা বা পা ঝুলিয়ে বসে থাকার প্রবনতা পায়ে পানি আসার প্রবণতা বাড়ায়। তাই কিছুক্ষণ পরপর নিজের অবস্থানের পরিবর্তন করুন। সচেতন থাকুন এই ব্যাপারে। যতোটা সম্ভব পা leg উপরে তুলে রাখার ব্যবস্থা করুন। ঘুমানোর সময়ও পায়ের তলায় বালিশ দিয়ে ঘুমাবেন।

সহজ ঘরোয়া সমাধান –

বরফের ব্যবহার :
যদি পায়ে পানি আসার সমস্যা বেশী হয়, তাহলে আক্রান্ত স্থানে একটি পাতলা কাপড়ে বরফ পেচিয়ে ধরে থাকুন। এতে অনেকটাই সমাধান পাবেন। (এটি ডায়বেটিস রোগীদের জন্য প্রযোজ্য নয়)।

পেঁয়াজের ব্যবহার :
পেঁয়াজে রয়েছে আমাদের রক্ত শোধনের দারুণ ক্ষমতা এবং এটি আমাদের কিডনির পাথর থেকেও মুক্তি দিতে পারে। আমাদের দেহকে টক্সিনমুক্ত রাখার ক্ষমতাও রয়েছে পেঁয়াজের। পায়ে পানি আসা সমস্যার পেঁয়াজের তৈরি সাধারণ একটি ঘরোয়া সমাধান রয়েছে। ৪ কাপ পানিতে ২-৩ টি ছোটো আকারের পেঁয়াজ কেটে দিয়ে ফুটিয়ে নিন। ১ চিমটি লবণ দিয়ে আরও খানিকক্ষণ জ্বাল দিয়ে চুলা থেকে নামিয়ে ছেঁকে নিন। পায়ে পানি আসা সমস্যা সমাধান না হওয়া পর্যন্ত এই পানীয়টি প্রতিদিন ২ কাপ পান করুন।

No comments

  1. Unwanted hair removal process at home. Suggest me

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *