বেশি সময় নিয়ে গোসল করলে কী হয়? জেনে নিন

আপনার শরীরে পানির প্রবাহ আপনাকে রিল্যাক্সড করে দিচ্ছে, আপনি আরাম অনুভব করছেন। তখন আপনার আঙুলের দিকে আপনার চোখ পড়ল, দেখলেন সেখানে অনেক দাগ এবং বলিরেখা। এই দাগ বা বলিরেখাগুলি তৈরি হয় আপনার ত্বকের উপরিভাগের কেরাটিনের কারণে। আপনার ত্বক বেশি পানি শোষণ করলে এই কেরাটিন প্রসারিত হয়ে যায়। এই দাগ বা বলিরেখা অস্থায়ী, তবে প্রতিদিন গোসলের কী কী প্রভাব পড়ে আপনার ত্বকের উপর, তা জানলে আপনি বিস্মিত হয়ে যাবেন।


গোসলের সময় সাধারণত জলের সাথে ত্বকের সরাসরি যোগাযোগ হয়। সারাদিনে আপনার ত্বকে যে ময়লা এবং তেল জমে গোসলের সময় তা ধুয়ে যায়। প্রতিদিনের ময়লা, জীবাণু ধুয়ে ফেলা অবশ্যই উপকারী, তবে ত্বকের প্রাকৃতিক তেল ধুয়ে ফেলা কোনোভাবেই ভালো নয়। আর্দ্র থাকার জন্য ত্বকের সবসময় কিছু তেল দরকার। অতিরিক্ত গোসল করলে ত্বকের স্বাভাবিক তেল ধুয়ে যায়। ফলে ত্বক শুকিয়ে যায় এবং ফেটে যায়।

যদি অতিরিক্ত গোসল বা বেশি সময় নিয়ে গোসল করেই থাকেন, তাহলে এর প্রতিক্রিয়া থেকে ত্বককে বাঁচানোর উপায় হলো গোসল থেকে বের হয়ে মিনিট তিনেক ত্বকে ময়েশ্চারাইজার লাগানো। গোসলের সময় সরাসরি গরম পানি ব্যবহারের পরিবর্তে উষ্ণ পানি ব্যবহার করুন। আর গোসলের সময় পানিতে হাল্কা ক্লিনজিং দ্রব্য ব্যবহার করতে পারেন, তাতে ত্বক শুষ্কতার হাত থেকে রক্ষা পাবে। গোসল এবং ত্বক সম্পর্কিত আরো কয়েকটি টিপস এখানে থাকছে।

আপনার হয়ত বেশিক্ষণ গোসল করতে ভালো লাগে, কিন্তু গোসলের সময় আপনার বয়সের দিকটি খেয়াল রাখা দরকার। আপনার বয়স যখন বাড়তে থাকে আপনার ত্বক স্বাভাবিক ভাবেই কম তেল তৈরি করতে পারে। আপনার বয়স ২৫ থেকে ৩০ এর মধ্যে থাকলে ৩০ মিনিট ধরে গোসল করলে ত্বক তেমন একটা শুষ্ক হবে না। কিন্তু ৩০ এর পরে বা ৪০ এর পরে ৩০ মিনিট সময় নিয়ে গোসল করলে দেখা যাবে আপনার ত্বক খসখসে এবং রুক্ষ হয়ে গেছে।

বয়স ৩০ বা ৪০ এর পরে হাল্কা গরম পানি দিয়ে ১৫ মিনিট সময় ধরে স্নান করলে আপনার ত্বক পরিষ্কার হবে আবার শুষ্কতার হাত থেকেও রক্ষা পাবে। আপনি গোসলে কী ব্যবহার করেন তার দিকেও মনোযোগ দিন। ডিওড্র্যান্ট বা সাবান ব্যবহার করলে ত্বকের শুষ্কতা বাড়তে পারে। গোসলে ময়েশ্চারাইজিং কিছু ব্যবহার করুন। তবে সেইসব কিছুতে থাকা পারফিউম বা স্ক্রাবিং উপাদান আপনার ত্বকের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে।

আর এমন টাওয়েল ব্যবহার করবেন না যেটি আপনার ত্বকের সব ময়েশ্চার শুষে নেয়। এমন টাওয়েল যত্নের সাথে ব্যবহার করুন যাতে আপনার ত্বকের আর্দ্রতা রক্ষা পায়।

ছবিটি ইন্টারনেট হতে সংগৃহীত